রকমারি

প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্ট বৃত্তি অনলাইন আবেদন (করুন ক্লিক করে)

আপনারা অনেকে প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্টের বৃত্তি আবেদন করার জন্য বিস্তারিত তথ্য জানতে চাচ্ছি। এরই পরিপ্রেক্ষিতে আজকে আমি আপনাদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্ট বৃত্তি অনলাইনে

আবেদন করার নিয়মাবলী সম্পর্কে বিস্তারিত ধারণা দিব। সে আপনাকে জানিয়ে দেবে প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্ট বৃত্তি অনলাইনে ফরম ফিলাপ কিভাবে করবেন। আর্টিকেলটি প্রথম থেকে শেষ পর্যন্ত মনোযোগ দিয়ে পড়বেন।

2022-2023 অর্থবছরের স্নাতক পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের ভর্তি সংক্রান্ত জন্য অনুদান প্রদান করছে। এ প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্ট সম্পর্কে আরও বিস্তারিত তথ্য জেনে নেওয়া যাক।

আজকে আমরা এই পোষ্টের মাধ্যমে আপনাদের সামনে প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্ট অনলাইনে আবেদন করার নিয়মাবলী সম্পর্কে বিস্তারিত ধারণা দিব। আপনাদের সামনে একটি গণপ্রজাতন্ত্রী

বাংলাদেশ সরকারের প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্টের একটা লিঙ্ক দিচ্ছি। www.pmeat.gov.bd আপনার এই লিংকে ক্লিক করে শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্টের অনলাইন আবেদন করতে পারবেন। আশা করি আপনাদের কাছে খুবই ভাল লাগবে।

আর যদি কোনো তথ্য পেতে চান আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করে জেনে নিতে পারবেন। দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীরা যেন অর্থাভাবে ঝড়ে না পড়ে সেই লক্ষ্যে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্যাগে একটি ট্রাস্ট গঠন করা হয়।

যা মূলত প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্ট নামে পরিচিত। এই ট্রাস্টটি ২০১২ সালে প্রধানন্ত্রী শেখ হাসিনার একান্ত প্রচেষ্টায় গঠন করা হয়।পূর্বেই উল্লেখ করা হয়েছে, অর্থাভাবে দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের

ঝড়ে পড়া রোধ করতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্যাগে এই ট্রাস্ট গঠিত হয়। এই ট্রাস্ট ফান্ড থেকে স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসা এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তি,

আর্থিক সহায়তা, অনুদান ও উচ্চ শিক্ষায় বৃত্তিমূলক সাহায্য প্রদান করা হয়। ই-স্টাইপেন্ড সিস্টেম প্রয়োগের ফলে নির্বাচিত শিক্ষার্থীরা নিজের সুবিধাজনক সময়ে, স্থানে এবং পছন্দ অনুযায়ী আর্থিক

প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে (যেমন বিকাশ, নগদ বা অন্যান্য মাধ্যম) স্ব-স্ব ব্যাংক অ্যাকাউন্টে উপবৃত্তির অর্থ গ্রহণ করতে পারে। ষষ্ঠ থেকে স্নাতক পাস ও সমমান শ্রেণী পর্যন্ত যেকোনো বাংলাদেশি শিক্ষার্থী এ সুবিধা গ্রহণ করতে পারবেন।

তবে তার জন্য শিক্ষার্থী অবশ্যই শ্রেণিকক্ষে কমপক্ষে 75 শতাংশ উপস্থিত থাকতে হবে। উপবৃত্তির জন্য নির্বাচিত শিক্ষার্থীদের অভিভাবকের বার্ষিক এক লক্ষ টাকা কম হতে হবে।

অপরদিকে সিটি কর্পোরেশন এলাকায় বসবাসকারী অভিভাবকের মোট জমির পরিমাণ পাঁচ শতাংশের কম থাকতে হবে। তবে সিটি কর্পোরেশন এলাকার বাইরে বসবাসকারী অভিভাবকের মোট জমির পরিমাণ পঁচাত্তর শতাংশের কম থাকতে হবে।

আপনার অনেকে প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সংক্রান্ত আবেদন ফরম ডাউনলোড করতে চান। আজকে আমরা এই পোষ্টের মাধ্যমে আপনাদের সামনে একটি বিস্তারিত তথ্য আলোচনা করব। আর্টিকেলটি প্রথম থেকে শেষ পর্যন্ত মনোযোগ দিয়ে পড়বেন।

আপনাদের সামনে একটি লিঙ্ক দিচ্ছি। ওই লিংকে ক্লিক করে খুব কম সময়ের মধ্যে আপনারা বিভিন্ন প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্টের আবেদন ফরম www.pmeat.gov.bd ডাউনলোড করে নিতে পারবেন।

Bangla Master

Bangla Master ওয়েবসাইট এর পক্ষ থেকে আপনাদেরকে স্বাগতম। এই ওয়েবসাইটে বাংলাদেশের সকল শিক্ষা বিষয়ক তথ্য আপনি জানতে পারবেন। স্কুল, কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয় সম্পর্কিত সকল আপডেট তথ্য এই ওয়েবসাইটে নিয়মিত দেয়া হয়ে থাকে। আপনাদের সুবিধার কথা বিবেচনা করে স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় এবং চাকরি বিষয়ক তথ্যগুলো আমরা বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে বিভক্ত করেছি।
Back to top button