স্বাস্থ্য

বাদামের উপকারিতা ও অপকারিতা [চিনা, দেশী, কাঠ, ভাজা] বাদামের উপকারিতা দেখুন

বাদাম আমাদের শরীরের জন্য খুবই উপকারী। এতে থাকা পুষ্টিগুণ হাড় গঠনে ও মাংসপেশির মজবুত রাখতে সাহায্য করে। বাদাম ব্রেনের কার্যক্ষমতা উন্নতি করে। বাদামের মধ্যে থাকা পুষ্টি উপাদানগুলো নানাভাবে আমাদের জন্য উপযোগী।

আজকে আমরা বাদামের উপকারিতা ও অপকারিতা, ভাজা বাদাম এর উপকারিতা অপকারিতা বিষয়গুলো নিয়ে আলোচনা করব। চোখকে সুস্থ রাখার জন্য সবুজ শাকসবজি পাশাপাশি বাদাম খাওয়া উচিত।

বাদামে রয়েছে দস্তা যা  শরীরকে ভিটামিন এ স্থানান্তর করতে সহায়তা করে। টিক পরিষ্কার দৃষ্টিশক্তির জন্য উপকারী। গবেষণায় দেখা গেছে যে চিনা বাদাম খাওয়ার ফলে ক্যান্সারের ঝুঁকি কমে যায়।

চিনাবাদামে থাকা প্রোটিন এবং ভিটামিন ই উপস্থিত থাকায় ক্যান্সারের ঝুঁকি হ্রাস পায়। যেহেতু চিনাবাদামে চিনা জাতীয় কোন উপাদান নেই তাই যারা ডায়াবেটিস রোগী তাদের জন্য এটি সম্পূর্ণ নিরাপদ।

পুষ্টিসমৃদ্ধ এবং সুস্বাদু বাদাম খাওয়ার ফলে যেকোন ধরনের হূদরোগে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা হ্রাস পায়। বাদামে থাকা ম্যাগনেসিয়াম, তামা অসম্পৃক্ত চর্বি গুলির একটি স্বাস্থ্যকর অনুপাত

এবং রিসিভারেটরের মতো অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট গুলি হার্টকে স্বাস্থ্যকর রাখে। সুস্থ ও তীক্ষ্ণ মস্তিষ্কের জন্য প্রয়োজন ভিটামিন, বিওয়ান নিয়াসিন এবং ফোলেট জাতীয় পুষ্টি যেগুলো বাদামে পাওয়া যায়।

বয়স বাড়ার ফলে আমাদের দেহে উপস্থিত বেশ কয়েকটি হাড় দুর্বল হয়ে যায় হাড়ের শক্তি বাড়ানোর জন্য বাদাম উপযোগী,এতে রয়েছে ম্যাঙ্গানিজ ও ফসফরাস। প্রচুর পরিমাণ বাদাম খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর হতে পারে।

বাদামে ক্যালরির পরিমাণ বেশি থাকে অতিরিক্ত খাওয়ার ফলে ওজন বৃদ্ধি পায়। চিনাবাদাম অন্যতম সাধারন এলার্জি এবং একটি গুরুতর সম্ভাব্য প্রক্রিয়ায় সৃষ্টি করতে পারে।

বেশি পরিমাণ চীনাবাদাম খাবার স্বাস্থ্যের পক্ষে খারাপ কারণ এগুলিতে উচ্চমাত্রার সিচুয়েটেড ফ্যাট রয়েছে। উচ্চমাত্রার স্যাচুরেটেড ফ্যাট হৃদপিন্ডের আক্রমণ, স্ট্রোক, আটকে থাকা ধমনী, হজমের সমস্যা উচ্চ রক্তচাপ

এবং অন্যান্য স্বাস্থ্য জটিলতা দেখা দিতে পারে। বক্স বাদান একটি পুষ্টিসমৃদ্ধ খাদ্য এতে রয়েছে -পটাশিয়াম, ফাইবার, আয়রন ভিটামিন, ক্যালসিয়াম, ফ্যাটি এসিড, সোডিয়াম, ওমেগা 3 ইত্যাদি।

বক্স বাদাম রক্তচাপ কমাতে সাহায্য করে, ক্লান্তি দূর করে, ক্যান্সার প্রতিরোধ করে, মস্তিষ্কের বিকাশ ঘটায়, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়, শরীরে এনার্জি জোগাড়, হার শক্ত করে, ত্বকের সমস্যা দূর করে।

বক্স বাদাম গাছের পাতা বেটে ভাঙ্গা হাড় ও জয়ন্টি প্রলেপ দিলে দ্রুত হাড় জোড়া লাগে। এই গাছের পাতা বাটা একজিমা জাতীয় চুলকানির উপর প্রলেপ দিলে চুলকানি ভালো হয় ।বক্স বাদাম গাছের ছাল চূর্ণ করে

পানিতে মিশিয়ে খেলে কিডনি ইনফেকশন দূর হয়। পেট পরিষ্কার হয়। পুষ্টিগুণে ভরপুর এই বাদাম কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করে, শ্বাসতন্ত্রের সমস্যা, হৃদরোগের ঝুঁকি কমায়, রক্তস্বল্পতা দূর করে এটি চুল ও ত্বকের জন্য ভালো।

কাঁচা বা ভাজা দু’ধরনের বাদামেই পুষ্টি উপাদান পাওয়া যায়। কাঁচাবাজারে অনেক সময় ব্যাকটেরিয়া থাকে সেগুলো স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর। ভাজা বাদামে থাকে ভালো কোলেস্টেরল, প্রোটিন এবং ফাইবার ভাজা বাদাম খেলে হজমের সমস্যা দূর হয়।

সেই সাথে রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণ রাখতে সাহায্য করে। ভাজা বাদাম ভাজা বাদাম খেলে দাঁতের ক্ষয় কমে যায়। ভাজা বাদামে থাকা প্রাকৃতিক তেল ত্বক ও চুল ভালো রাখতে সাহায্য করে।

বাদাম ভাজার ফেলে কিছু পুষ্টিগুণ কমে।তাই কাচা বাদাম পরিষ্কার করে খাওয়াই ভালো অতিরিক্ত বাজার কারণে কিছু সময় বাগান বাদামের পুষ্টিগুণ অনেকাংশে কমে এতে করে পর্যাপ্ত পরিমাণে ভিটামিন পাওয়া যায় না।

Bangla Master

Bangla Master ওয়েবসাইট এর পক্ষ থেকে আপনাদেরকে স্বাগতম। এই ওয়েবসাইটে বাংলাদেশের সকল শিক্ষা বিষয়ক তথ্য আপনি জানতে পারবেন। স্কুল, কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয় সম্পর্কিত সকল আপডেট তথ্য এই ওয়েবসাইটে নিয়মিত দেয়া হয়ে থাকে। আপনাদের সুবিধার কথা বিবেচনা করে স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় এবং চাকরি বিষয়ক তথ্যগুলো আমরা বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে বিভক্ত করেছি।
Back to top button